Dark Mode
  • Sunday, 13 June 2021
ওয়েবসাইটের জন্য ৮টি সেরা গুগল অ্যাডসেন্স বিকল্প এডস নেটওয়ার্ক

ওয়েবসাইটের জন্য ৮টি সেরা গুগল অ্যাডসেন্স বিকল্প এডস নেটওয়ার্ক

আপনি যদি একজন কন্টেন্ট ক্রিয়েটর বা ব্লগার হন তবে আপনি গুগল অ্যাডসেন্স সম্পর্কে অনেক কিছুই যানেন। তবে এডসেন্স ব্যাতিত অনেক এডস নেটওয়ার্ক কোম্পানি রয়েছে সেগুলোর বিষয়ে কতটা যানেন? বর্তমানে ছোট বা কম ট্রাফিক ওয়েবসাইটগুলোকে  মনিটাইজেশন বা ইনকামের ব্যবস্থা করার জন্য অনেকগুলি এডস নেটওয়ার্ক রয়েছে। কিন্তু আপনি যদি একজন ওয়েবসাইটের মালিক হন এবং আপনার ব্লগ ওয়েবসাইটকে মনিটাইজেশন করতে চান তবে আমি বলতে পারি তার জন্য আপনি অবশ্যই গুগল অ্যাডসেন্স কে বেছে নিবেন। কিন্তু  এছাড়াও অনেক এডস নেটওয়ার্ক রয়েছে সেগুলো কেন নিতে চান না?  আজকে কথা বলব আপনার ওয়েবসাইটের জন্য এডসেন্সের বিকল্প এডস নেটওয়ার্ক কেন ব্যবহার করবেন।

গুগল অ্যাডসেন্স কি?

গুগল অ্যাডসেন্স আপনার ওয়েবসাইট, ভিডিও বা অ্যাপ্লিকেশন মনিটাইজেশনের জন্য বিশ্বের বৃহত্তম এবং সবচেয়ে জনপ্রিয় ডিজিটাল বিজ্ঞাপন প্ল্যাটফর্ম।এই প্ল্যাটফর্ম আপনাকে আপনার ওয়েবসাইট, ভিডিও এবং অ্যাপ্লিকেশনে মনিটাইজেশনের মাধ্যমে তাদের বিজ্ঞাপনগুলি প্রদর্শন করে অর্থপার্জনের সিস্টেম করে দেয়।

এই আর্টিকেলে লিখবো গুগল এডসেন্সের বিকল্প আরো ৮টি এড নেটওয়ার্ক প্লাটফর্ম নিয়ে।

দীর্ঘ সময় ধরে চিন্তাভাবনা করার পরে আমি এবং আমার টিম গুগল অ্যাডসেন্সের বিকল্প এডস নেটওয়ার্কের একটি শর্টলিস্ট তৈরি করেছি। আসুন ডিজিটাল এডস নেটওয়ার্ক প্ল্যাটফর্মগুলো বিষয়ে শুরু করি....

মিডিয়া.নেট

Media.net বিশ্বের দ্বিতীয় বৃহত সার্চ ইঞ্জিন বিং এবং ইয়াহু দ্বারা পরিচালিত। বড় বড় মার্কেটিং কোম্পানির তথ্য বলছেন, মিডিয়া ডট নেট গুগল অ্যাডসেন্সের প্রথম প্রতিযোগী।এবং আপনি জেনে অবাক হবেন যে মিডিয়া.নেট বিশ্বের বৃহত্তম বিজ্ঞাপন নেটওয়ার্কগুলির মধ্যে একটি যা বিশ্বের হাউসহোল্ড অনুসারে ব্যবহৃত হয়। এই এডস নেটওয়ার্কের আরও একটি বড় অংশ হলো এটি আপনার ইয়াহু এবং বিং থেকে সার্চের হিস্টোরি অ্যাক্সেসের সাথে আপনার ওয়েবসাইটে বিজ্ঞাপন প্রদর্শনের সুযোগ দিয়ে থাকে। এটি 2010 সালে প্রতিষ্ঠিত হয়েছিল এবং দিব্যাঙ্ক তুরখিয়া(Divyank Turakhia) প্রতিষ্ঠা করেছিলেন। এই এডস নেটওয়ার্ক কোম্পানির উত্তর আমেরিকা, ইউরোপ এবং এশিয়া জুড়ে ১৫০০ এর বেশি কর্মচারী রয়েছে। ডিফল্টভাবে, এটি শেষ সাত দিনের ইমপ্রেশন এবং উপার্জন আপডেট করে থাকে। তবে আপনি চাইলে কাস্টমাইজ করতে পারেন।

মিডিয়া.নেটের সর্বনিম্ন পে-আউট ১০০ ডলার এবং এটি গুগল অ্যাডসেন্সের মতোই পেমেন্ট করে।  কিন্তু এদের পেমেন্ট পেপাল এবং পেওনারের মাধ্যমে নিতে হবে। এই কোম্পানি সরাসরি ব্যাংক ট্রান্সফার করে না।

PropellerAds

প্রোপেলারএডস  আরও একটি জনপ্রিয় এবং পরিচিত বিজ্ঞাপন (ads) নেটওয়ার্ক। এটি অ্যালেক্স ভ্যাসকিন 2021 সালে প্রতিষ্ঠা করেছিলেন। প্রোপেলার অ্যাডস-এর সদর দফতর  হচ্ছে ইউরোপীয় ইউনিয়ন (ইইউ)।  প্ল্যাটফর্মটি প্রোপেলার অ্যাডস গ্লোবাল অ্যাডভারটাইজিং নেটওয়ার্ক নামেও পরিচিত।

এর সর্বনিম্ন সিপিসিটি মাত্র 0.005 ডলার এবং ন্যূনতম সিএমপি 0.01 ডলার। আপনি পেওনিয়ার, প্রিপেইড মাস্টারকার্ড বা পেওনার গ্লোবাল ব্যাংক ট্রান্সফারের মাধ্যমে আপনার উপার্জন পে-আউট করতে পারেন।  প্রোপেলএডস এর সর্বনিম্ন  পে-আউট 5 ডলার। পেওনারের ক্ষেত্রে, সর্বনিম্ন পরিমাণ 20 ডলার এবং ওয়্যার ট্রান্সফারের জন্য, 550 ডলার থেকে শুরু হয়। তাদের ডেস্কটপ এবং মোবাইল মিলিয়ে মাসিক ১ বিলিয়ন + ইউজার এবং হাজার হাজার বিজ্ঞাপন প্রচারক রয়েছে।

Infolinks

ওয়েবসাইট এবং ইউটিউব বিজ্ঞাপনের জন্য ইতিমধ্যে একটি সুপরিচিত এডস নেটওয়ার্ক  প্ল্যাটফর্ম হচ্ছে ইনফোলিংক্স। এটি 2007 সালে প্রতিষ্ঠিত হয়েছিল এবং থ্রাইভ প্লাস এলএলসির মালিকানাধীন ছিল।  ইনফোলিংকের সদর দফতর নিউ জার্সির রিজডউড। এই এডস প্ল্যাটফর্মের দাবি তাদের বিশ্বজুড়ে মাসিক 240 মিলিয়ন এক্টিভ ইউজার এবং মাসিক 1.5 বিলিয়ন বিজ্ঞাপন ভিউ রয়েছে।  ইনফোলিংকস গ্লোবাল অ্যাড নেটওয়ার্কের মাধ্যমে বিশ্বজুড়ে 35000 এরও বেশি ওয়েবসাইট মনিটাজেশন করেছে।

ইনফোলিংকস রেফারাল প্রোগ্রাম সিস্টেমও দিয়ে রেখেছে। সেখানে আপনি যদি রেফার করেন তবে আপনি 12 মাসের জন্য আপনার রেফারেলের প্রতিটি আয় থেকে 10% কমিশন পাবেন। সুতরাং আমি বলব এটি বাড়তি ইনকামের জন্য একিটি ভাল সিস্টেম। এবং আপনি যদি বিজ্ঞাপনদাতা হন তবে আপনি ইনফোলিংকস ব্যবহার করে আপনার পণ্য বা পরিষেবাটির বিজ্ঞাপন দিতে পারবেন। আরও তথ্যের জন্য  তাদের অফিসিয়াল ওয়েবসাইট ভিজিট করতে পারেন

Bidvertiser

ছোটখাটো ওয়েবসাইটের জন্য গুগল অ্যাডসেন্স সেরা বিকল্প হল বিডভারটাইজার।  বিশ্বব্যাপী বিজ্ঞাপন প্ল্যাটফর্মের দেশীয় বিজ্ঞাপন, পুশ বিজ্ঞাপন, সরাসরি নেভিগেশন, পপ-আন্ডার এবং এক্সএমএল বিজ্ঞাপন রয়েছে। এই প্ল্যাটফর্মের সবচেয়ে বড় সুবিধা হলো আপনার ভিজিটর কম থাকলেও আর্নিং করতে পারবেন। আপনি যদি ছোটখাটো ওয়েবসাইটের মালিক হন এবং আপনার ওয়েবসাইটে ট্রাফিক কম থাকে আপনি বিডভারটাইজার দিয়ে আপনার সাইটে সহজেই মনিটাইজ পেয়ে যাবেন।

তাদের সর্বনিম্ন 10 ডলার পে-আউট অপশন  রয়েছে। আপনি পেপাল, বিটকয়েন, ওয়্যার ট্রান্সফার এবং এমনকি ব্যাংক চেকের মাধ্যমে আপনার অর্থ পে-আউট করতে পারবেন।  বিডভারটাইজার 2003 সালে Bpath LTD দ্বারা প্রতিষ্ঠিত হয়েছিল।  বিডভারটাইজার সর্বোচ্চ দামি এডস কেন্দ্র করে এবং তারা আপনার সাইটে বিজ্ঞাপন প্রদর্শন সর্বোচ্চ সিপিসি রেটে।

AdCash

পরবর্তী সেরা অ্যাডসেন্স বিকল্প এডস নেটওয়ার্ক টি হল অ্যাডক্যাশ। এটি 2007 সালে ক্রিস্টোফ অ্যাভিগনন এবং থমাস পাদোভানি প্রতিষ্ঠা করেছিলেন। আপনার যদি কম ট্রাফিক বা একটি ছোট ওয়েবসাইট থাকে তবে আপনি নিজের সাইটে সহজে মনিটাজেশন করতে এবং অ্যাডক্যাশ দিয়ে অর্থ উপার্জন করতে পারবেন।তারা প্রকাশকদের জন্য একাধিক বিজ্ঞাপন এড করার অফার দিচ্ছে। সংস্থাটি দাবি করেছে যে তারা প্রতিদিন 10BN বিজ্ঞাপন অনুরোধ রয়েছে।

অ্যাডক্যাশের সেরা সুবিধা হল এর পেমেন্ট সিস্টেম। আপনি Payoneer, WebMoney, Skrill, Bank Transfer, PayPal, এবং Bitcoin এর মাধ্যমে আপনার উপার্জন পে-আউট করতে পারবেন। এবং আপনি কমপক্ষে 25 ডলার পে-আউট করতে পারবেন।

AdSterra

অ্যাডস্টেরা অন্যতম শীর্ষ স্থানীয় ডিজিটাল এডস নেটওয়ার্ক প্ল্যাটফর্ম। এটি ২০১৩ সালে প্রতিষ্ঠিত হয়েছিল। সংস্থাটি দাবি করেছে যে তারা পপন্ডার বিজ্ঞাপনের জন্য ১.৩ বিলিয়ন ট্রাফিক পেয়েছে, প্রতি সপ্তাহে ওয়েব পুশের জন্য ২ বিলিয়নেরও বেশি ট্র্যাফিক এবং দেশীয় বিজ্ঞাপনের জন্য ১+ বিলিয়ন ট্রাফিক এবং  সরাসরি 10000 প্রকাশক রয়েছে। তবে আপনার অবশ্যই পপ-আন্ডারের জন্য প্রতি মাসে 5 হাজার ইমপ্রেশন এবং ডিসপ্লে ব্যানারের জন্য মাসে 50 হাজার ইমপ্রেশন থাকতে হবে। সুতরাং সহজভাবে বলতে গেলে, আপনার যদি একটি বড় ওয়েবসাইট থাকে তবে আপনি অ্যাডস্টেরার জন্য আবেদন করতে পারেন।

Sovrn

সোভরন হলো বোল্ডার কলোরাডো ভিত্তিক আরেকটি জনপ্রিয় অনলাইন এডস নেটওয়ার্ক প্লাটফর্ম। এটি 2006 সালে প্রতিষ্ঠিত হয়। এই এডস নেটওয়ার্কের সবচেয়ে বড় সুবিধা হলো যখনই আপনার বিজ্ঞাপন শো করানো হবে কেও ক্লিক করুক বা না করুক  আপনি ঠিকই অর্থ উপার্জন করতে পারবেন।

কোম্পানিটি দাবি করেছে যে সোভরন বিজ্ঞাপন দিয়ে 40 হাজারেরও বেশি ওয়েবসাইট মনিটাইজ করেছে এবং তাদের দৈনিক 170 মিলিয়ন-বেশি ইউজার এবং দৈনিক সাড়ে ৩ বিলিয়ন পেজ ভিউ রয়েছে। সুতরাং যদি আপনার ওয়েবসাইটে প্রচুর ভিজিটর থাকে এবং কোনও বিজ্ঞাপন ক্লিক না থাকলেও  আপনি ইনকাম পেয়ে যাবেন।

Skimlinks

আমি সর্বশেষ অ্যাডসেন্স বিকল্প যে এডস নেটওয়ার্ক নিয়ে বলবো তা হলো  স্কিমলিংকস।  এটি 2007 সালে প্রতিষ্ঠিত হয়েছিল এবং যুক্তরাজ্যের লন্ডনে অবস্থিত। এবং নিউ ইয়র্ক সিটিতে তাদের একটি অফিস রয়েছে। স্কিমলিংকস অ্যালিসিয়া নাভারো, জো স্টেপনিউস্কি প্রতিষ্ঠা করেছিলেন।

স্কিমলিঙ্কস বৃহত্তম বাণিজ্য  এবং ওয়েবসাইট বিজ্ঞাপন প্ল্যাটফর্মগুলির মধ্যে একটি। কোম্পানিটির দাবি তাদের বিশ্বজুড়ে 60000 এর বেশি প্রকাশক এবং 48000+ ব্যবসায়ী রয়েছে  এবং তারা এক দিনে আড়াই মিলিয়নেরও বেশি বিক্রয় উত্পন্ন করে।

আপনি যদি কোনও অনুমোদিত সাইট খুজে থাকেন তবে আপনি স্কিমলিংকএর সাথে কাজ করতে পারেন।

গুগল অ্যাডসেন্স বিকল্পের কারণ

গুগল অ্যাডসেন্স বিকল্প এডস বেছে নেওয়ার জন্য তিনটি প্রধান কারণ রয়েছে। আমার দিক থেকে, আমি বলব যে অনেক মানুষই ভাল  পরিমান অর্থ আয়ের জন্য এল্ট্রানেটিভ বা একাদিক এডস নেটওয়ার্ক ব্যবহার করতে পারেন। সর্বনিম্ন অর্থ্য উত্তোলন, এডসেন্স একাউন্ট ব্যান এবং এডসেন্সের নিয়ম নীতি অনেক কঠিন, এপ্রভাল পাওয়াও কঠিন তাছাড়া আরও অনেক কিছুর জন্য গুগল অ্যাডসেন্স বিকল্প হিসেবে অন্যান এডস নেটওয়ার্ক বেছে নিতে পারেন।

অ্যাডসেন্সের বিকল্প খোজার কয়েকটি কারণ নীচে আলোচনা করা হলো:

1. আয়ের একাধিক সিস্টেম 

অনেক কন্টেন্ট রাইটার রয়েছে যারা একাধিক বিজ্ঞাপন নেটওয়ার্ক  তাদের ব্লগে বা সাইট মনিটাইজেশন করতে চান। কারণ এতে আরও ক্লিক পাওয়ার সুযোগ রয়েছে। আপনার সাইটে বিজ্ঞাপন রাখার পর্যাপ্ত জায়গা থাকলে আপনি অন্যান প্লাটফর্মের বিজ্ঞাপনও রাখতে পারেন এবং আরও বেশি অর্থপার্জন করতে পারেন।

2. সর্বনিম্ন সর্বনিম্ন পে-আউট

অ্যাডসেন্সের সর্বনিম্ন পে-আউট হচ্ছে 100 ডলার। অন্যদিকে, অনেক এডস নেটওয়ার্ক প্লাটফর্ম রয়েছে যারা 5 ডলার হলেই পে-আউট করার সুযোগ দেয়। কম ট্র্যাফিক ওয়েবসাইট মালিকদের জন্য, 100 ডলার আয় করাটা অনেক বেশি কস্টের এবং তাদের দীর্ঘ সময় অপেক্ষা করতে হয়। আর যারা বাংলাদেশ থেকে ব্লগিং করি আমরা তারা বুঝি এটা কতটা কষ্টদায়ক।

৩. নতুন অভিজ্ঞতা অর্জন

অনেকেই আছে যারা বিভিন্ন বিজ্ঞাপন নেটওয়ার্ক প্লাটফ্ররমের ইনকামের তুলনা করতে চান এবং অন্যরা কীভাবে কাজ করেন তা জানতে চা বা এডস এড করার সিস্টেম যানার ক্ষেত্রে, নতুন বিজ্ঞাপন প্রকাশকের প্ল্যাটফর্মে জন্য সাইন আপ করেন।

4. অনুমোদন বা এপ্রুভাল

অনেক কন্টেন্ট ক্রিয়েটররা এডসেন্সের নিয়ম নীতি বা শর্ত পূরণ করতে ব্যর্থ হচ্ছে এবং তারা অ্যাডসেন্স থেকে মনিটাজেশন বা এপ্রুভাল পাচ্ছে না। তারা অল্টারনেটিভ এডস নেটওয়ার্ক দিয়ে ভাল পরিমান ইনকাম করতে পারবেন।

5. শর্তাবলী

প্রতিটি অনলাইন এবং অফলাইন প্ল্যাটফর্মের কিছু শর্তাদি থাকে  সুতরাং এটি একটি সাধারণ বিষয়, এই বিজ্ঞাপন দাতা প্ল্যাটফর্মের কিছু শর্তাদি এবং কন্টেন্ট ক্রিয়েটরদের শর্ত পূরণ করতে হয়। সম্প্রতি অ্যাডসেন্স এর শর্তাবলী পরিবর্তন করেছে এবং প্রায়ই পরিবর্তন হয়। যেমন আপনার ইউটিউব ভিডিও মনিটাজেশ করতে আপনার  অবশ্যই 4000 ঘন্টা ওয়াচটাইম  এবং 1000সাবস্ক্রাইব লাগবে সুতরাং ভিডিও ক্রিয়েটর যারা তারা কোন শর্ত ছাড়াই অল্টারনেটিভ এডস নেটওয়ার্ক প্লাটফর্ম ব্যবহার কতে  অর্থপার্জন করতে পারবেন।

শেষ কথা

আমরা সবাই যানি গুগল এডসেন্স হচ্ছে গুগলের নিজস্ব একটি প্লাটফর্ম।  এবং বিশ্বের সবচেয়ে সেরা এডস নেটওয়ার্কই হচ্ছে এডসেন্স। তবুও, আপনাদের মনে হতে পারে কেন আমি অন্যান এডস নেটওয়ার্ক নিয়ে এতো কিছু লিখলাম। দেখুন আমরা সবাই কিন্তু সমান না,  ব্লগিং বলেন আর ভিডিও মার্কেটিং বা এপ্স মার্কেটিং বলেন এখানে বিগিনার থেকে শুরু করে প্রফেশনাল পর্যন্ত রয়েছে। সবাই এসব সেক্টরে টিকতে পারেনা আর যারা টিকে যায় তারা অনেক কস্টের বিনিময়ে, সময়ের বিনিময়ে টিকে। সুতরাং আমাদের মাঝে অনেকেরই এডসেন্সের সঠিক ধারনা নাই তাই অনেকসময় অনেক পরিশ্রম করেও কোন লাভ হয়না। তাই নতুন যারা আছে বিশেষ করে তাদেরকেই উদ্দেশ্য করে আমি এই আর্টিকেল টি লিখেছি। আশা করি যারা এডসেন্স পাচ্ছেনা, তারা একটু হলেও উপকার পাবে। মনে রাখবেন অনলাইন থেকে ইনকাম করাটা সহজ ব্যাপার না। তাই লেগে থাকুন মন দিয়ে আপনিও সফল হবেন।

এতোক্ষন আপনাদের সাথে ছিলাম -

এম. রাসেল নীল

CEO: ICTMELA

ধন্যবাদ

comment / Reply From

archive

please_select_a_date